Breaking News

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীকে কোপালো কাজের বুয়ার মে’য়ে

রাজশাহীতে ফারজানা তাসনিম সিমরান (২০) নামে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে কু’পিয়ে জ’খম করা হয়েছে।

শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) রাতে ওই ছাত্রীর মা বা’দী হয়ে বোয়ালিয়া থানায় একটি মা’মলা করেন। হা’মলার অভিযোগে ঝর্ণা (২৫) নামের এক তরুণীকে গ্রে’প্তার করেছে পু’লিশ।

গতকাল দুপুরে নগরীর বোয়ালিয়া থানার টিকাপাড়া এলাকায় এ ঘ’টনা ঘটে। সিমরান রাজশাহী মেডিক‌্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

আ’হত সিমরান শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাগ্রিবিজনেস বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। তিনি টিকাপাড়া এলাকার মৃ’ত আলতাফ হোসেনের মে’য়ে।

এদিকে, অ’ভিযুক্ত ঝর্ণা নগরীর বোয়ালিয়া থানার টিকাপাড়া মিরেরচক এলাকার বাসিন্দা। তার মা জরিনা বেগম সিমরানদের বাড়িতে কাজ করেন।

সিমরানের মা ফরিদা ইয়াসমিন বলেন, ‘দুপুরে ঝর্ণা আমাদের বাড়িতে আসে। এ সময় আমার মে’য়ে সিমরান তার বান্ধবীর স’ঙ্গে দেখা করতে বাড়ির দরজার তালা খুলে বের হচ্ছিল। হঠাৎ দেখি আমার মে’য়ের চুল ধরে জো’রে টান দিয়ে ঝর্ণা একটি বঁটি দিয়ে বুকের বাম পাশে আ’ঘাত করে। সিমরানের চি’ৎকারে ঝর্ণা বাড়ির দরজা খুলে পালানোর চেষ্টা করলে স্থানীয়রা তাকে আ’টক করে।’

বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রা’প্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিবারন চন্দ্র বর্মন বলেন, ‘এ ঘ’টনায় অ’ভিযুক্ত ঝর্ণাকে গ্রে’প্তার করা হয়েছে। ঘ’টনাস্থলে তল্লা’শি চা’লিয়ে হা’মলায় ব্যবহৃত বঁটিসহ একটি ধা’রালো চা’পাতি উ’দ্ধার করা হয়েছে। তবে কী কারণে সে হা’মলা চা’লিয়েছে তা এখনও জানা যায়নি।’

About tanvir

Check Also

ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্য’বসা,ক’চি মে’য়ে আছে

যে দেশের মানুষ শতকরা ৯০ ভাগ মু’সলমান সেখানে নাকি ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্যবসা করছে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *