Breaking News

‘এই মুখ ফ্যামিলিকে দেখাতে পারবো না’ লিখে অভিমানে তরুণীর আত্মহ’ত্যা

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে প্রে’মিকের উপর অভিমান করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে নাছিমা আক্তার (২৮) নামের এক তরুণী আত্মহ’ত্যা করেছেন। নাছিমা শ্রীমঙ্গল রেলষ্টেশনের অবসরপ্রা’প্ত টিটি আব্দুল হকের মে’য়ে।

মঙ্গলবার (২২ ডিসেম্বর) বিকেলে ময়না ত’দন্ত শেষে দাফনের জন্য লা’শ তাদের গ্রামের বাড়ী জামালপুরে নিয়ে যাওয়া হয়। এর আগে গত সোমবার রাতে রেলওয়ে স্টাফ কোয়ার্টারে গ’লায় ফাঁ’স দিয়ে আত্মহ’ত্যা করে নাছিমা আক্তার।

এদিকে, আত্মহ’ত্যার আগে নাছিমা তার ফেসবুক আইডি থেকে একটি স্ট্যাটস দেয়, এতে লিখে আখলাকুল সাঈফের সাথে দীর্ঘ ৮ মাস তার প্রেমের সম্প’র্ক থাকার পর এখন সে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানাচ্ছে।

একটাই ইস্যু, তার মা আমার ফ্যামিলির লোকজনের সাথে অনেক খা’রাপ ব্যবহার করেছে। আমরা নিচু জাত তারা কোটিপতি এসব বলেছে। আমার ভাইয়ের বউকে অশালীন ভাষায় কথা বলেছে।

তানমিনা, জুলফা, লিভা এদের সাথেও এবই কাজ করেছে। সে আমার কাছ থেকে প্রায় ১ লাখ টাকা নিছে বিভিন্ন সমস্যা দেখিয়ে। এখন আমি এসব বলাতে সব অস্বীকার করে ফেসবুক আইডি, হোয়াটস এপ, ফোন নম্বর থেকে ব্লক করেছে।

৪৮ জনকে ট্যাগ করে দেওয়া ওই স্ট্যাটাসে নাছিমা আক্ষেপ করে লিখেন, এই মুখ নিয়ে আমি আমার ফ্যামি’লিতে মুখ দেখাতে পারবো না।

তাই আমি নিজের ই’চ্ছায় সু’ইসাইড করছি। স্ট্যাটাসের শেষ পেরায় নাছিমা আখলাকুল ইসলাম চৌধুরীতে ২ নং এবং তার মা সুরাইয়া চৌধুরীকে যথাক্রমে ১ নং আ’সামি হিসেবে উল্লেখ করেন।

নাছিমার ভাই জহির রায়হান জানান, আখলাকুল পরিবার থেকে প্রায়ই আমার বোনকে ফোনে আমাদের পরিবার সম্প’র্কে বিভিন্ন কথা বলা হতো।

আমার বোন এসব কথা সহ্য করতে না পেরে আত্মহ’ত্যার পথ বেছে নিয়েছে। আমি তাদের বি’রুদ্ধে বোন হ’ত্যার আভিযোগ করবো।

About tanvir

Check Also

ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্য’বসা,ক’চি মে’য়ে আছে

যে দেশের মানুষ শতকরা ৯০ ভাগ মু’সলমান সেখানে নাকি ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্যবসা করছে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *