Breaking News

বাবার মুক্তির জন্য আ’দালতে ৩ শি’শু

মায়ের করা মিথ্যা মা’মলায় কা’রাগারে দিন কাটছে বাবার। পথে পথে ঘুরছে ৩ শি’শু। বা’ধ্য হয়ে বৃ’দ্ধ দাদার হাত ধরে আ’দালতে হাজির শি’শুরা। শুরু হয় ৩ শি’শুর অন্য রকম আইনি লড়াই। তিন শি’শু আর একজন বৃ’দ্ধ। প্রিয়জনকে ফিরে পাওয়ার প্রতিজ্ঞা তাদের এক কাতারে এনে দাঁড় করিয়েছে।

১২ বছরের মিম, তার ছোট দুই ভাই সোহাগ আর সোহান আ’দালতে পা রেখেছে তাদের বাবাকে কারাকুঠুরি থেকে মুক্তি দিতে। এ যাত্রায় তাদের সহযাত্রী ৮০ বছরের বৃ’দ্ধ দাদা মোহাম্ম’দ আলী।

কা’ন্নাজ’ড়িত কণ্ঠে শি’শুদের দাদা বলেন, ওই দুজন মাদ্রাসায় পড়তেছে। ওদের খরচ আমি চালাতে পারছি না। এখন কোন উপায় না পেয়ে আমার ছেলের মুক্তির জন্য দুই নাতিকে নিয়ে আ’দালতে বারান্দায় ঘুরে ফিরি।

জানা গেছে, প’রকীয়ার জের ধরে স্ত্রী আছমা বেগমের করা মিথ্যা মা’মলায় মো. সোহেল গেল দেড় বছর ধরে কা’রাগারে। এ মা’মলায় ঢাল হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছিল মে’য়ে মিমকে। কিন্তু এবার মিম আর তার ছোট দুভাই বাবার নির্দোষিতার কথা জানাতেই আ’দালতে হাজির হলো।

মে’য়ে মিম জানান, আমার বাবাকে ছাড়া ভালো লাগছে না। মাঝে মাঝে মনে হয়, বাবাকে ছাড়া আমরা এতিম, আমাদের পৃথিবীতে কেউ নাই।

ছেলে সোহাগ জানান, আমি বাবাকে চাই, আর কিছু চাই না।

আ’সামিপক্ষের আইনজীবী মানঞ্জুরুল ইসলাম সুমন জানান, মায়ের প’রকীয়া আসক্তি ধা.মাচা’পা দেওয়া জন্য এই মা’মলাটি করা হয়েছে। আমরা এর ন্যায়বিচার আশা করছি।

আর রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী শহিদ হোসেন ঢালী জানান, মা’মলাটি মিথ্যা হলে বা’দীর বি’রুদ্ধে ১৭ ধারায় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

যদিও এরপরপরই সংশ্লিষ্ট ট্রাইব্যুনালের বিচারকের স’ঙ্গে যোগাযোগ করে আ’দালতের নির্ধারিত সময়ের বাইরে গিয়ে আ’সামি সোহেলের বি’রুদ্ধে অভিযোগ গঠনের উদ্যোগ নেন রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী।

এদিকে সোহেলের ৩ স’ন্তান আর বৃ’দ্ধ পিতার চোখে হার না মানার প্রত্যয়। আইনি লড়াইয়ে জয়ী হয়ে প্রিয়জনকে ঘরে ফিরিয়ে নেয়ার স্বপ্ন দেখছে তারা।

About tanvir

Check Also

ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্য’বসা,ক’চি মে’য়ে আছে

যে দেশের মানুষ শতকরা ৯০ ভাগ মু’সলমান সেখানে নাকি ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্যবসা করছে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *