Breaking News

সৃজিত-মিথিলার সংসারে নতুন সদস্য

দুই বাংলার জনপ্রিয় দম্পতি হিসেবে সমাদৃত কলকাতার চলচ্চিত্র নির্মাতা সৃজিত মুখোপাধ্যায় ও বাংলাদেশের অ’ভিনেত্রী রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা। দুজনে মিলে পেতেছেন সু’খের সংসার। তাদের নিয়ে ভক্তদের আ’গ্রহ তুঙ্গে থাকে সবসময়ই।

তাদের বিয়ের দু-তিন মাস যেতে না যেতেই এসে পড়ে করো’নাভাই’রাস। সেই ভাই’রাসের আ’ক্রমণে কাবু হয়ে পড়ে মানুষ। সকলকে ঘরে আ’ট’কা পড়ে যেতে হয়। বন্ধ হয়ে যায় সব বাস, ট্রেন, বিমান। শুরু হয় লকডাউন। ঠিক লকডাউনের আগেই বাংলাদেশ কয়েকদিনের জন্য গিয়েছিলেন মিথিলা।

সেখানেই মে’য়েকে নিয়ে আ’ট’কে থাকতে হলো গোটা লকডাউনে। প্রে’ম ভালোবাসা আবদার সব কিছু প্রকাশ করা যেত একমাত্র ভিডিও কল ও সোশ্যাল মিডিয়াতেই।

এর পর লকডাউন হালকা হতেই মে’য়েকে স’ঙ্গে নিয়ে সোজা কলকাতায় চলে যান মিথিলা। এখন তারা স্বা’মীর স’ঙ্গেই রয়েছেন তিনি। আয়োজন চলছে পূজাকে কেন্দ্র করে।

সৃজিত-মিথিলা
তবে করো’নার কারণে এবারের পূজা কাটবে বাড়িতেই। খুব একটা বাইরে যাওয়ার সুযোগ হবে না। এই ঘরব’ন্দীর এই সময়টা বড়রা কোনোমতে সয়ে গেলেও বাড়ির ছোটদের জন্য খুব ক’ষ্টের। তাই নিজেদের মে’য়ের সময় কা’টাতে তারা ঘরে এনেছেন নতুন দুই সদস্য। মিষ্টি দুটি কচ্ছপ ছানা কিনে এনেছেন সৃজিত-মিথিলা।

তাদের মে’য়ের জন্যই এই ছানাদের নিয়ে এসেছেন তারা। মিথিলা ট্যুইটারে কচ্ছপের ছবি শেয়ার করে লেখেন, ‘আমাদের পরিবারের নতুন সদস্যদের স’ঙ্গে আলাপ করুন। হ্যারি এবং হার্মোনি।’

প্রস’ঙ্গত, বিয়ের পর এবারই প্রথম দুর্গাপূজা পালন করবেন সৃজিত। স’ঙ্গে আছে স্ত্রী’। তাই পূজার আ’নন্দটা হবে দ্বিগুণ। সেই আ’নন্দে নতুন মাত্রা যোগ করেছেন কলকাতার মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। তিনি এ দম্পতিকে উপহার দিয়েছেন নীল শাড়ি ও লাল রঙের পাঞ্জাবী।

সেই উপহার পেয়ে মমতাকে ধ’ন্যবাদ জানাতে ভু’লেননি সৃজিত ও মিথিলা।

About tanvir

Check Also

ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্য’বসা,ক’চি মে’য়ে আছে

যে দেশের মানুষ শতকরা ৯০ ভাগ মু’সলমান সেখানে নাকি ভিজিটিং কার্ডের মাধ্যমে দে’হ ব্যবসা করছে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *